রাখে আল্লাহ্‌ মারে কে ?

superadmin | আপডেট: ১৯ জুলাই ২০২২ - ০৭:১৬:৩৪ পিএম

রাখে আল্লাহ্‌ মারে কে ?
——————————

যতবার ছবি দেখছি ততোবারই ভাবছি আহাঃ কি ভাগ্যবান বাচ্চা । ট্রাকের সাথে এক্সিডেন্টের সেই মুহূর্তটিতে মায়ের পেট ফেটে বাইরে এসে পরেছে । বাবা-মা, ৬ বছরের বড় বোন সবাই চলে গেছে অথচ অলৌকিক ভাবে এই বাচ্চাটি বেরিয়ে এসেছে। সত্যিই তাঁর উপর মহান সৃষ্টিকর্তার অপার কৃপা।

কথায় বলে রাখে আল্লাহ্‌ মারে কে ?

যার আসার কথা সে আসবেই যার যখন ফিরে যাবার সময় হবে তাঁকে ফিরে যেতেই হবে। কাউকে কোন কিছুতেই আটকানো যাবে না।
আমার মেয়েটিও সাত মাসের সময় পৃথিবীর আলো দেখেছে পেট কেটে, কিন্তু চাহনী তে এতো তীব্রতা ছিল না। সিজারিয়ান অপারেশনে সহজে পৃথিবীর আলো দেখা শিশুরা যুদ্ধ করে বেরোতে হয় না বলে প্রথম কয়েকদিন ঘুমিয়েই থাকে।

সাত মাস বয়সী এই শিশুটির চোখে মুখে এতো মায়া আর তীব্রতা যেন গুটা বিশ্বকে জয় করে নিয়েছে। হবেই তো পুরো বিরুদ্ধ সিচুয়েশনে পৃথিবীর আলো দেখেছে।

ওর চোখ যেন বলছে, ” নিষ্ঠুর হে পৃথিবী তোমায় চেনা আছে।”

ভীষণ ইচ্ছে হচ্ছে শিশুটির দায়িত্ব নেই। ওকে ঢাকায় এনে ডাক্তার দেখাই। বিশেষ করে হাত দুটো তে ব্যান্ডেজ বাঁধা। সঠিক চিকিৎসা পেলে নিশ্চয়ই সেরে উঠবে ।

কিন্তু শুনছি এই মিরাকল বেবির পেছনে লক্ষ লোকের লাইন। সবাই ওর দায়িত্ব নিতে চায়।

আমাকে না দিলেও এই শিশুর যদি কোন কাজে আসি অবশ্যই করবো।

একেক পরিবারে একেক রকম ট্রেনড লক্ষ করা যায় অর্থাৎ একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি। এই শিশুটির পরিবার একের পর এক সদস্যের এক্সিডেন্টে মৃত্যুর সাক্ষ্য বহন করে।

ইয়াং সন্তানহীন কোন শিক্ষিত, দায়িত্বশীল, ধনী দম্পতীকে দত্তক দিলে শিশুটি আদরে বড় হত। কিন্তু রক্তের অধিকারের কাছে কোন আবদার চলে না। দাদা-দাদী যা সিদ্ধান্ত নিবেন তাই হবে।

মূলত দাদা-দাদীর সিদ্ধন্তের উপড়ই শিশুটির ভাগ্য নির্ণীত হবে। যদিও জানি প্রতিটি মানুষের ভাগ্য নির্ধারিত, তবুও অপেক্ষায় থাকি দেখা যাক কি হয় ।

এই মুহূর্তে আরেকটি শিশুর কথা মনে পরছে। মায়ের পেটে গুলী লাগা অবস্থায়ও শিশুটি পৃথিবীর আলো দেখেছিল, বয়স এখন নিশ্চয়ই ৬/৭ বছর হবে। কোথায় আছে শিশুটি কেমন আছে ?

এই মিরাকেল বেবীর জন্য অনেক অনেক দোয়া এবং শুভকামনা । মানুষের দোয়া আর আদরে বেড়ে উঠুক মাতৃপিতৃহীন অনাথ শিশুটি।

 

লেখিকাঃ খুজিস্তা নূর ই নাহরীন নিয়মিত লেখালেখি করেন। বিশেষ করে সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁর লেখা ঝড় তুলে। পূর্বপশ্চিমবিডিনিউজ এর সাবেক সম্পাদিকা। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ছাত্রী খুজিস্তা নূর ই নাহরীন বর্তমানে মডার্ন সিকিউরিটিজ লিঃ এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক। তাঁর টাইমলাইন থেকে পোস্টটি সংগৃহিত।

কিউএনবি/বিপুল/ ১৯.০৭.২০২২/ সন্ধ্যা ৭.১০

▎সর্বশেষ

ad