কাশ্মীরিদের সঙ্গে খোলামেলা কথা বলতে চাই: রাহুল গান্ধী

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ভারতের সংবিধান থেকে কাশ্মীর রাজ্যের স্বায়ত্বশাসন দানকারী ৩৭০ অনুচ্ছেদ বাতিল করার পর থেকে রাজ্যটি কার্যত অবরুদ্ধ এবং বিচ্ছিন্ন অবস্থায় আছে। এমন পরিস্থিতিতে দেশটির বিরোধী দলের অভিযোগ, মানুষকে ঘরবন্দি করে রেখে কাশ্মীরকে শান্ত হিসেবে দেখাতে চাইছে কেন্দ্রীয় সরকার। এরকম এক অবস্থায় রাজ্যটির রাজ্যপালের ‘আমন্ত্রণ’ গ্রহণ করে উপত্যকায় যেতে চান প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী।

অনেক আগেই থেকে ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারের দাবি করে আসছে কাশ্মীরে কোনো সমস্যা হচ্ছে না। কাশ্মীরের বিক্ষোভের ছবি প্রকাশ পেলেও সরকারের দাবি এমন কোনো পরিস্তিতি সৃষ্টি হয়নি। রাহুল গান্ধীকে তা নিজের চোখেই দেখা যাওয়ার আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন জম্মু ও কাশ্মীরের রাজ্যপাল সত্যপাল মালিক। সম্প্রতি তিনি বলেন, ‘বিমান পাঠাচ্ছি, সবকিছু নিজে চোখেই দেখে যান রাহুল।’ প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতিকে এক প্রকার চ্যালেঞ্জই করেন সত্যপাল মালিক। সেই ‘আমন্ত্রণ’ গ্রহণ করেছেন রাহুল গান্ধী।

আজ মঙ্গলবার জম্মু ও কাশ্মীরের রাজ্যপালের উদ্দেশ্য রাহুল গান্ধী টুইট করেন, আপনার আমন্ত্রণ গ্রহণ করছি। বিরোধীদের একটি প্রতিনিধি দল এবং আমি জম্মু-কাশ্মীর ও লাদাখ যাব। আমাদের কোনো বিমান চাই না। কিন্তু দেখবেন আমাদের যেন সাধারণ মানুষের সঙ্গে দেখা করতে দেওয়া হয়। যে কোনো জায়গা যেতে দেওয়া হয়। আমরা ওখানকার রাজনৈতিক নেতা, সাধারণ মানুষ ও জওয়ানদের সঙ্গে কথা বলতে চাই।  জম্মু ও কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা বিলোপের পর রাহুল গান্ধী অভিযোগ করেন, কাশ্মীরে বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন সাধারণ মানুষ। ক্রমশ হিংসা ছড়াচ্ছে রাজ্যে। খবর আসছে ওখানে মানুষ মরছে। তাই ওখানে কী হচ্ছে তা দেশের মানুষকে জানানো হোক। বন্ধ হোক এই লুকোচুরি খেলা। রাহুলের ওই মন্তব্যের পরই তারে রাজ্যের পরিস্থিতি এসে দেখে যেতে বলেন রাজ্যপাল সত্যপাল মালিক।

 

 

কিউটিভি/আয়শা/১৩ই আগস্ট, ২০১৯ ইং/বিকাল ৭:০৫

শেয়ার করুন